সমর্পিতা

 

সমর্পিতা

লিখেছে – কেকা
ছবি – নিকোলাস

 

বাস্তবের সিঁড়ি বেয়ে নেমে যায় ফুল। নেমে যায় কোমর চুল বুক গলা, ছুঁয়ে যায় নদীর জলের শীতলতা। চোখ দুটো ডোবেনি এখনও, ওতে স্মৃতির শেষ ঝলকানি। এভাবেই প্রথম চুমু খেয়েও ভয়ে শীতল ছিল সে, শুভাদের ছাদের সিড়িতে।
ফুলটুসি নাম, তাই কত হেসেছে নীল। যদিও পাল্টা ডেকেছি বুলুদা, আর অট্টহাসিতে কেঁপেছি যত বার আরও শক্ত করে কোমর জড়িয়ে বলেছ, “আমি বাঙালি, ব্লু বলে উপহাস!” আরও হেসেছি, কেঁপেছি আরও শক্ত পেশির লোভে, জানা নেই। হঠাৎ হারিয়ে গেছিলে বিদেশে।
আমি ফুলশয্যার রাত থেকে পিষেছি আর ভেবেছি, কেন ডেকেছিলে ফুল বলে, কেন বুকপকেটে সেঁটে রাখলে না, কেন…? উত্তরহীন আমি আজ তাই অন্য কোথাও যাচ্ছি। অনাথ ছিলাম, নিঃসন্তান, তাই আগুপিছু টান নেই। শুধু তুমি, তুমি ছিলে, আছ। আমি নীলে মিশে যাচ্ছি, ঠোঁট ছুঁয়েছে জল। একই শীতল, অনাবিল, অনন্য অনুভব। শেষ একটা চুমু চেয়ে তোমায় চিঠি লিখেছিলাম, তুমি চরিত্রহীন বললে। প্রথম সমর্পণ তো আমি তোমাকেই করেছিলাম। আমি তো কাউকে ছুঁতে দিইনি আমাকে। আমি তোমার দেওয়া নাম ‘ফুল’ সমর্পিতা নামে সার্থকতা খুঁজে নিলাম।

 

 

 

You May Also Like

Author: admin_plipi

3 thoughts on “সমর্পিতা

  1. লেখিকা কে সাধুবাদ। দারুন ভালো লাগলো পড়ে। এই লেখা কি শেয়ার করা যায়?

Leave a Reply

Your e-mail address will not be published.