আটটা সাতচল্লিশ

Aat-ta-Satchollish-by-Brahmananda-chakrabarty-snap-by-rajsekhar-choudhury-at-pandulipi-dot-net

লিখেছেন : ব্রহ্মানন্দ
ছবি : রাজশেখর

পারের দিকে
চলা এক পথিক।
জীবন খোঁজা,
কোনো এক
অন্ধকারের যাত্রী।

সোনার থালায়
ধীরে ধীরে
গোধূলির কমলা রং,
নীল চাদরে জড়াতে জড়াতে
কখন এল
কালো এক উজ্জীবিত আঁধার।

রাত আটটা সাতচল্লিশ!
ক্লান্ত শহর ছুটেছে তবুও।
ক্লান্ত পাতায় ডেকেছে
শান্ত বাতাসের ডাক।
ক্লান্ত শিশিরেরা
কখন চেয়েছে
সেই পথিককে,
সেই ছেলেটাকে।

দু’একটা বাদুড়,
দু’একটা গন্ধপোকা,
কখন যেন যায়
শুনে কথা;
তাও যায় না বোঝা।

আটটা সাতচল্লিশের সুচরিতা,
হঠাৎ মায়ায় বলে,
“খুব আনন্দ পেয়েছি!”

ধীরে ধীরে
‘আটটা সাতচল্লিশ’
কোথাও যেন যায় দূরে।
কলঙ্ক জড়ানো পথে
ছেলেটা খুঁজে মরে;
সেই আটটা সাতচল্লিশের
চেনা-অচেনা সুচরিতাকে!

Aat ta Satchollish     |     Brahmananda      |      Rajsekhar      |        www.pandulipi.net           |      Bengali     |    Poem     |     Story    |

pandulipi.net is an online platform for expressing the Indian literature to the world. Here at pandulipi – what makes us the best story, poem, novel, travelogue site is the upliftment of the open and indigenous minds of authors from various bandwidth- new starter to ameture and ameture to professional. We thrive to speak to the world about Indian literature and will never let its glory get dim. If you have the spark of writing or photography or any other creativity in any form do let us know. Submit your writing here. or Contact us here for any other clarification how you can contribute to the world.

Author: admin_plipi

11 thoughts on “আটটা সাতচল্লিশ

  1. জীবনে পাওয়া বা না পাওয়া নিয়ে লেখা অনেক আছে। না পাওয়া র দুঃখ নিয়ে লেখাও প্রচুর। কিছু অব্যক্ত দুঃখ কষ্ট নিয়ে এই লেখা মনে হলো। বুঝলাম না পুরোটা। দুঃখিত!

Leave a Reply

Your email address will not be published.