সম্পর্ক

 

 

 

বহুদিন পর দেখা আরুহি আর সূর্য্য-র৷

-কিরে, ভালো আছিস তো?

বহুদিন পর এই প্রশ্নটা শুনে সূর্য্য নিজের মনেই বলে ওঠে মেয়েটা আজও বদলায়নি, মুখে শুধু বলে

-হ্যাঁ, ভালো আছি৷ আর তুই?

-আছি এক রকম৷

-খারাপ নেই সেটা বুঝতেই পারছি, তাও একবার জিজ্ঞেস করলাম ভদ্রতার খাতিরে৷

-তোর আমার সম্পর্কটা আজ ভদ্রতার খাতিরে এসে দাঁড়িয়েছে!

-হা.হা.হা. সরি৷ আসলে সম্পর্কের কথা বললি তো তাই হাসিটা আর চাপতে পারলাম না৷ কিছু মনে করিস না৷

-তোর আমার কথা শুনে হাসি পাচ্ছে?

-আসলে তুই সম্পর্কের কথা বললি তো তাই৷ আমাদের মধ্যে তো কোনোদিনই কোনো সম্পর্ক ছিল না৷ যেটা ছিল সেটা হল আমার একতরফা ভালবাসা৷

-একটা কথা জিজ্ঞাসা করব?

-হ্যাঁ,কর৷ তুই আবার কবে থেকে পারমিশন নিয়ে কথা বলতে শুরু করলি৷ তাও আমার থেকে৷

-কাউকে ভালোবেসেছিস?

-হ্যাঁ৷ কেন বলত?

-না, এমনি৷ আর আমাকে ভুলে গেছিস?

-কাকে ভালোবাসি জিজ্ঞেস করলি না তো!

-আমি জেনে কী করব? তোকে যেটা জিজ্ঞেস করলাম তার উত্তর দে৷

-না, তোকে ভুলতে পারিনি৷ আজও আমার মন জুড়ে শুধু তুই আছিস৷ আজও তোকে ভালোবাসি সেই প্রথম দিনের মতোই৷ আজও আমার তোর বলা সেই কথাটা মনে আছে৷ যেদিন বুকভরা ভালোবাসা নিয়ে তোর কাছে গিয়ে বলেছিলাম, তোকে আমি আমার জীবনের থেকেও বেশী ভালোবাসি৷ তোকে ছাড়া আমি থাকতেই পারব না৷

আর তুই এর উত্তরে বলেছিলিস, যে নিজের জীবনকে ভালোবাসে না সে আমাকেও ভালোবাসতে পারবে না৷ সেদিন খুব কষ্ট হয়েছিল৷ এরপর থেকে তুই যখন রোজ আমায় জিজ্ঞেস করতিস, কিরে ভালো আছিস তো? আমার খুব বলতে ইচ্ছা করত, যে তুই পাশে থাকলে তো আমি এমনিই ভালো থাকব৷ কিন্তু বলিনি কেন জানিস?

-কেন বলিস নি?

-যাতে আজ বলতে পারি যে আমি আমার জীবনকে ভালোবাসি, আর তোকেও৷ শুধু পার্থক্য একটাই, আজ আমি তোকে  ছাড়া থাকতে শিখে গেছি, তোকে ছাড়া বাঁচতে শিখে গেছি৷ আসছি,ভালো থাকিস৷

আরুহি চুপচাপ দাঁড়িয়ে দেখতে থাকে সূর্য্যর চলে যাওয়া৷

 

 

কলমে – সুদেষ্ণা

ছবি – দেব

 

Author: admin_plipi

11 thoughts on “সম্পর্ক

  1. ভালোবাসায় যখন ‘শর্ত’ আর ‘যদি’ চলে আসে, সব ছেলের ই এমন করে ভাবা উচিত। একজন মহিলা লেখিকাকে পুরুষের চোখ দিয়ে দেখতে দেখে ভালো লাগলো। না হলে আমরা পুরুষরা তো বদনামের ভাগিদার।

  2. আজকাল কার ভালোবাসায় মনের টান অনেক কমে গেছে। ভালো লাগলো লেখাটা।

  3. কত মেয়ে যে ছেলেদের এই ভাবে প্রত্যাখ্যান করে, তার হিসাব সময়ের গভীরে সব হারিয়ে যায়। আপনি স্ত্রী জাতির পক্ষ না নিয়ে যে এই ভাবে পুরুষদের কথা লিখেছেন, তার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। নাহলে আজকাল সবাই নারীবাদী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.